ড. কামালকে অন্ধ বিশ্বাস করেছিলাম: ব্যারিস্টার মওদুদ

ঢাকা লিগ্যাল ডেস্ক : গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেনের ওপর অন্ধ বিশ্বাসের কারণে বিএনপি নির্বাচনে গিয়েছিল বলে জানিয়েছেন দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমদ। বলেছেন, ভোটে এত খারাপ ফল হবে, সেটা তাদের ধারণা ছিল না।

শুক্রবার দলীয় চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বন্দ্বিত্বের এক বছর পূর্তির দিন তার মুক্তির দাবিতে বিএনপির সমাবেশে বক্তব্য রাখছিলেন মওদুদ। রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে এই আলোচনায় বিএনপি নেতা খালেদা জিয়ার মামলা ছাড়াও আওয়ামী লীগের অধীনে ভোটে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েও প্রশ্ন তোলেন।

৩০ ডিসেম্বরের একাদশ সংসদ নির্বাচনের আগে ১৩ অক্টোবর কামাল হোসেনের নেতৃত্বে জোট গঠন করে বিএনপি। নাম রাখা হয় জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট। বিএনপি প্রধান দল হলেও জোটের প্রধান নেতা হিসেবে আবির্ভূত হন কামাল হোসেন।

দশম সংসদ নির্বাচন বর্জন করা বিএনপি দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনে যাবে না বলে ঘোষণা দিয়েছিল। তবে ঐক্যফ্রন্ট গঠনের পর আওয়ামী লীগের অধীনেই নির্বাচনে যায় বিএনপি। আর ভোটে সাড়ে ১৩ শতাংশ ভোট এবং আটটি আসন নিয়ে ইতিহাসের সবচেয়ে বাজে ফল করে।  

মওদুদ বলেন, ‘একটা বিশ্বাসের ওপর ভিত্তি করে নির্বাচনে গিয়েছি। যদি না যেতাম তাহলে আপনারাই বলতেন, না গিয়ে ভুল করেছেন। আরেকটি কারণ হলো, নির্বাচনে গেলে আমাদের নেতাকর্মীরা বের হয়ে আসতে পারবে, মানুষের কাছে যেতে পারবে। আরেকটা কারণ ছিল ড. কামাল হোসনের ওপর অন্ধ বিশ্বাস ছিল। নির্বাচনে এতোটা খারাপ অবস্থা হবে তা ধারণায় ছিল না।’

বিএনপির একজন প্রার্থীকেও প্রচার চালাতে দেওয়া হয়নি অভিযোগ করে মওদুদ বলেন, ‘প্রার্থী ও নেতাকর্মীদের বাড়ির পাশে বোমা ফাটিয়েছে, ভয়ভীতি ছড়িয়েছে। বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোটারদের ভয়ভীতি প্রদর্শন করেছে, যেন তারা ভোটকেন্দ্রে না যায়। গেলে বাড়ি জ্বালিয়ে দেবে, ছেলেদের জেলে পাঠাবে।’

বিএনপি নেতার অভিযোগ, এ নির্বাচনে সরকার পুলিশকে ক্যাশ টাকা দিয়েছে। বলেন, ‘আগে আমরা প্রার্থীরা ক্যাশ টাকা দিতাম। কিন্তু সরকার যে ক্যাশ টাকা দেয়, সেটা আগে জানা ছিল না।’

এই অভিযোগ হাতে কলমে প্রমাণ করা যাবে না-এই কথাটিও উল্লেখ করেন বিএনপি নেতা। বলেন, ‘তবে কথাগুলো শতভাগ সত্য।’