গাড়ির টায়ারের বয়স কত, জানবেন কীভাবে?

দৈনন্দিন কাজে যারা গাড়ি ছাড়া চলতেই পারেন না, তারা হয়তো বুঝবেন এর চাকা কত গুরুত্বপূর্ণ। আর চাকার কথা চিন্তা করলেই প্রথমে মাথায় আসে টায়ারের ছবি। নতুন টায়ার কেনার পরও অনেক সময় ভোগান্তি পোহাতে হয়। কিন্তু টায়ারের বয়স যদি আপনি জেনে নিতে পারেন, তাহলে কেনার আগেই সতর্ক থাকা যাবে। ভাবছেন টায়ারের বয়স জানবেন কীভাবে? জেনে নিন-

টায়ারের বয়স জানতে হলে কিছু কৌশল অবলম্বন করতে হবে। কেনার আগে এ ধরনের ছোট কৌশল পরবর্তী সময়ে আপনাকে স্বস্তি দেবে বৈকি। টায়ারের বয়স নির্ধারণের জন্য আপনাকে টায়ারের ডিপার্টমেন্ট অব ট্রান্সপোর্টেশন বা সংক্ষেপে ডট নাম্বার জানতে হবে। ২০০০ সালের পর যেসব টায়ার তৈরি হয়েছে, সেগুলোতে একটি চার ডিজিটের ডট কোড থাকে। প্রথম দুটি নম্বর দ্বারা বোঝা যায় কোন সপ্তাহে টায়ারটি তৈরি হয়েছিল এবং পরের দুটি দ্বারা বোঝা যায় টায়ারটি কত সালে তৈরি হয়েছিল।

ধরা যাক, কোনো টায়ারের ডট কোড ২৩০৯ হয়, তাহলে বুঝতে হবে এটি ২০০৯ সালের ২৩তম সপ্তাহে তৈরি হয়েছিল।

তবে ২০০০ সালের আগে যেসব টায়ার তৈরি হয়েছে, তাতে তিন অংকের কোড থাকে এবং এগুলো থেকে টায়ারের বয়স নির্ধারণ করা অনেক কঠিন। এ ধরনের কোডের ক্ষেত্রে প্রথম দুটি নম্বর দ্বারা সপ্তাহ এবং শেষেরটি দ্বারা এটি কোন দশকে তৈরি হয়েছে সেটি বোঝায়।

কিন্তু বিপত্তি ঘটবে তখনই, যখন ডট নাম্বার দেখতে পাওয়া যাবে না। কেননা এই ডট নাম্বার সবসময় চাকার বাইরের দিকে থাকে না। সেক্ষেত্রে ডট নাম্বার পরীক্ষা করতে জ্যাক ব্যবহার করে গাড়ি ওপরে তুলে দেখে নিতে হবে।

ডট নাম্বার দেখে টায়ার কেনা হলে আপনি মোটামুটি নিশ্চিত থাকতে পারবেন বেশ কিছুটা সময় ধরে। এছাড়া নতুন গাড়ি কেনার সময়ও ভালোভাবে পরীক্ষা করে নেয়া উচিত।

সূত্র: টেলিগ্রাফ